কক্সবাজার কথা

কক্সবাজারে ১০ একর সরকারি জমি উদ্ধারঃ আটক-৩

কথা প্রতিবেদক
কক্সবাজার শহরের পাহাড়ি এলাকা  লাইটহাউস ও ফাতেরঘোনায় অভিযান চালিয়ে প্রায় ১০ একর সরকারি জমি দখলমুক্ত করেছে প্রশাসন। এসব দখলে জড়িত থাকার অভিযোগে তিন জনকে আটক করা হয়েছে। জব্দ করা হয়েছে পাহাড় কাটায় ব্যবহৃত বেশ কিছু সরঞ্জামও।
মঙ্গলবার দুপুর থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক), কক্সবাজার জেলা প্রশাসন, পরিবেশ অধিদপ্তর  এবং বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ড যৌথ অভিযান চালিয়ে এসব অবৈধ দখল উচ্ছেদ করেছে।
আটকরা হলেন, হোসেন আহম্মদ, শাহ আলম ও মো. ইসলাম। তারা সকলে অবৈধ দখলদার ও পাহাড় কর্তনকারি।
অভিযানে নেতৃত্ব দেয়া কক্সবাজারের অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট (এডিএম) মোহাম্মদ মাসুদুর রহমান মোল্লা বলেন, দুদকের মহাপরিচালক (প্রশাসন) মোহাম্মাদ মুনীর চৌধুরীর নির্দেশে যৌথ অভিযানে পাহাড় কাটা বন্ধের পাশাপাশি প্রায় ১০ একর সরকারি জমি উদ্ধার করা হয়েছে।  দুদকের মহাপরিচালক (প্রশাসন) কক্সবাজারের জেলা প্রশাসককে পরিবেশবিধ্বংসী এ অপতৎপরতা প্রতিহত করতে কঠোর নির্দেশনা দিয়েছেন। এর পরিপ্রেক্ষিতেই মঙ্গলবার থেকে অভিযান শুরু হয়েছে।
দুদকের মহাপরিচালক (প্রশাসন) মোহাম্মাদ মুনীর চৌধুরী বলেন, পাহাড় পৃথিবীর পেরাগ। এটি কাটা মানে পরিবেশটাকে নড়বড়ে করে ফেলা। তাই একে পরিবেশবিধ্বংসী কাজের প্রধান দুর্নীতি হিসেবে ধরা হয় । প্রশাসন ও পরিবেশ অধিদপ্তরের নজরদারির অভাবে এ ধ্বংসযজ্ঞ ঘটছে। দুদক পাহাড় কাটার ঘটনার পেছনে দুর্নীতির উৎস অনুসন্ধান ও তদন্ত করবে। দায়ী কাউকে ছাড় দেয়া হবে না।
অভিযানে কক্সবাজারের অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট (এডিএম) মোহাম্মদ মাসুদুর রহমান মোল্লার সাথে দুদকের চট্টগ্রাম বিভাগীয় কার্যালয়ের উপ-পরিচালক লুৎফুল কবির চন্দ ও পরিবেশ অধিদপ্তর কক্সবাজার কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক (প্রধান কেমিস্ট) কামরুল হাসান, নির্বাহি ম্যাজিস্ট্রেট সেলিম শেখসহ সংশ্লিষ্টরা সাথে ছিল।
Show More

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Close
Close